সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১৩ ফাল্গুন, ১৪৩০, ১৫ শাবান, ১৪৪৫

‘যুক্তরাষ্ট্রকে ধ্বংস করার মতো যথেষ্ট অস্ত্র আছে রাশিয়ার’

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

অস্তিত্ব হুমকির মুখে পড়লে যুক্তরাষ্ট্রসহ বিশ্বের যেকোনও শত্রুকে ধ্বংস করে দেওয়ার মতো যথেষ্ট অস্ত্র মস্কোর হাতে আছে বলে হুঁশিয়ার করে দিয়েছেন রাশিয়ার নিরাপত্তা পরিষদের সেক্রেটারি নিকোলাই পাত্রুশেভ। মস্কোর পারমাণবিক শক্তিকে ওয়াশিংটন অবমূল্যায়ন করছে বলেও অভিযোগ করেছেন তিনি।

সোমবার রাশিয়ার রাষ্ট্রায়ত্ত সংবাদপত্র রসসিস্কায়া গেজেটাকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এই হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছেন পাত্রুশেভ। রাশিয়ার নিরাপত্তা পরিষদের প্রভাবশালী সেক্রেটারি নিকোলাই পাত্রুশেভের এই মন্তব্যে বিশ্বের দুই বৃহৎ পারমাণবিক শক্তিধর দেশের পারমাণবিক অস্ত্রের শোডাউনের ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে। যদিও মস্কো বরাবরের মতো পারমাণবিক সংঘাত এড়াতে চায় বলে দাবি করে আসছে।

নিকোলাই পাত্রুশেভ বলেছেন, ‘আমেরিকান রাজনীতিবিদরা তাদের নিজস্ব প্রচারে আটকে পড়ে আত্মবিশ্বাসী রয়েছেন যে, রাশিয়ার সাথে সরাসরি সংঘর্ষের ক্ষেত্রে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র প্রতিরোধমূলক ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালাতে সক্ষম। এই হামলার পরে রাশিয়া আর প্রতিক্রিয়া জানাতে পারবে না।’

তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের এমন চিন্তাধারা অদূরদর্শী বোকামির শামিল এবং অত্যন্ত বিপজ্জনক।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের ঘনিষ্ঠ এই মিত্র বলেছেন, রাশিয়া ধৈর্যশীল এবং তার সামরিক সুবিধা নিয়ে কাউকে ভয় দেখায় না। তবে রাশিয়ার কাছে আধুনিক অনন্য অস্ত্র রয়েছে, যা তার অস্তিত্বের জন্য হুমকি দেখা দিলে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রসহ যেকোনো শত্রুকে ধ্বংস করতে সক্ষম।

রাশিয়া বলেছে, গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে ইউক্রেনে কয়েক হাজার সৈন্য পাঠানোর একটি কারণ রয়েছে। আর এই কারণ হলো মার্কিন নেতৃত্বাধীন ন্যাটো জোটের সাথে কিয়েভের সম্পর্ক থেকে উদ্ভূত নিরাপত্তা হুমকিকে মোকাবিলা করা।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের নির্দেশে গত বছরের ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে বিশেষ সামরিক অভিযান শুরু করে রাশিয়ার সৈন্যরা। এরপর থেকে পশ্চিমের বিরুদ্ধে মস্কোকে পারমাণবিক হুমকি দেওয়ার অভিযোগ করেছে রাশিয়া। রাশিয়ার অস্তিত্ব সংকটের মুখোমুখি হলে কিংবা চরম পরিস্থিতিতে পড়লে পারমাণবিক অস্ত্র ব্যবহার করার জন্য মস্কো প্রস্তুত রয়েছে বলেও হুঁশিয়ার করে আসছে ক্রেমলিন।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on print
Print

‘গর্ভের শিশুর লিঙ্গ প্রকাশ করা যাবে না’

গর্ভে থাকা কোনো শিশুরই লিঙ্গ পরিচয় প্রকাশ করা যাবে না বলে রায় দিয়েছেন হাইকোর্ট। এ রায় হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারগুলোকে কঠোরভাবে মানার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

বিস্তারিত »

চসিকের একুশে পদক পেলেন শিল্পপতি নাছির উদ্দিন

চসিকের একুশে পদক পেলেন শিল্পপতি নাছির উদ্দিন২০২৪ সালে শিল্প উন্নয়ন ও সমাজসেবায় চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন একুশে পদক পেয়েছেন দেশের বিশিষ্ট শিল্পপতি আলহ্বাজ মো. নাছির উদ্দিন

বিস্তারিত »

রাঙামাটিতে ইউপিডিএফ’র কালেক্টরকে গুলি করে হত্যা

রাঙামাটির পার্বত্য জেলার দুর্গম বাঘাইছড়ি উপজেলায় নিপুণ চাকমা ওরফে সোগা চাকমা নামে ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ) এর এক কালেক্টরকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে।

বিস্তারিত »

চট্টগ্রাম প্রিমিয়ার ক্রিকেটে মুক্তিযোদ্ধার শুভসূচনা

বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ের পর ব্যাটারদের দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে চট্টগ্রাম প্রিমিয়ার ক্রিকেট লিগে শুভসূচনা করেছে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ক্রীড়া চক্র। শনিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) অনুষ্ঠিত ম্যাচে ফ্রেন্ডস ক্লাবকে ছয়

বিস্তারিত »

আওয়ামী লীগ নেতা হাজী জহুর আহমেদ আর নেই

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক হাজী জহুর আহমেদ আর নেই । শনিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) সকাল ৬টার দিকে চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালে তিনি

বিস্তারিত »

পিলখানার চূড়ান্ত বিচার দ্রুত শেষ হবে বলে আশা করছি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, পিলখানায় একটি বড় হত্যাকাণ্ড হয়েছিলো। প্রাথমিক একটা বিচার হয়েছে। চূড়ান্ত বিচার হয়তো অল্পদিনের মধ্যে শেষ হয়ে যাবে বলে আমরা আশা

বিস্তারিত »

শোকাবহ পিলখানা ট্র্যাজেডি দিবস আজ

আজ ২৫ ফেব্রুয়ারি, পিলখানায় সেনা কর্মকর্তাদের নৃশংসভাবে হত্যার ১৫ বছর। ২০০৯ সালের এই দিনে তৎকালীন বাংলাদেশ রাইফেলস বিডিআর বর্তমানে ( বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ বা সংক্ষেপে

বিস্তারিত »

পবিত্র শবে বরাত আজ

আজ রোববার (২৫ ফেব্রুযারি) দিবাগত রাতে যথাযোগ্য ধর্মীয় মর্যাদায় সারাদেশে পবিত্র শবে বরাত পালিত হবে। হিজরি সালের শাবান মাসের ১৪ তারিখ দিবাগত রাতটি মুসলমানরা শবে

বিস্তারিত »

বিদ্যুৎ সুবিধা যদি বজায় রাখতে দাম সমন্বয় করতে হবে

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, সরকারকে বিদ্যুতে যথেষ্ট ভর্তুকি দিতে হচ্ছে এই ভর্তুকি ধীরে ধীরে কমাতে চাই। সে কারণে সমন্বয় করাটা জরুরি হয়ে

বিস্তারিত »